• Youtube
  • google+
  • twitter
  • facebook

সাব্বিরের ওপর প্রত্যাশার চাপ

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট২:২১ অপরাহ্ণ, মার্চ ১৫, ২০১৬

বাংলাদেশ দলের টি২০ স্পেশালিস্ট খ্যাত সাব্বির রহমান যেন দিন দিন মেলে ধরছেন নিজেকে। গেল বছর খুব একটা ভালো না করতে পারলেও এ বছরের শুরু থেকেই তিনি জ্বলে উঠেছেন। জানুয়ারিতে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একটি টি২০ ম্যাচে ৪৬ রানের ইনিংসই তার জ্বলে উঠার সূচনা। এরপর খুব একটা পেছন ফিরে তাকাতে হয়নি সাব্বিরকে। প্রতিপক্ষ বোলারদের ওপর ব্যাট হাতে দাপট খাটিয়ে একের পর এক দারুণ ইনিংস খেলে চলেছেন তিনি। যার কারণে আইসিসির টি২০ ব্যাটসম্যানদের র‌্যাঙ্কিংয়েও তার অভাবনীয় উন্নতি ঘটেছে। রয়েছেন তালিকার ১৮ নম্বরে।

শুধু তাই নয়, চলতি বছর টি২০ ক্রিকেটে রান করার হিসেবে ভারতের বিরাট কোহলি ও রোহিম শর্মার মতো ব্যাটসম্যানদেরও পিছনে ফেলেছেন সাব্বির। তবে পারফরম্যান্স ভালো করলে যেমন প্রশংসা মিলে, তেমনি আবার ভক্তদের প্রত্যাশার চাপও বাড়ে। টি২০ বিশ্বকাপের মূল পর্ব (সুপার টেন) শুরুর আগে তাই সাব্বিরের ওপর সেই চাপও থাকছে। বিশেষ করে বাংলাদেশ দলে সাকিব আল হাসান কিংবা মুশফিকুর রহিমের মতো তারকা ব্যাটসম্যানরা যখন বর্তমানে ভালো ফর্মে নেই। ফলে সাফল্য পেতে সাব্বিরের ব্যাটে অনেকটাই ভরসা রাখতে হচ্ছে বাংলাদেশকে।

২০১৫ সালে ২৪ এপ্রিল ঢাকায় অপরাজিত ৫১ রান করেছেন পাকিস্তানের বিপক্ষে। টি২০-তে এটিই তার প্রথম হাফসেঞ্চুরি। এরপর দক্ষিণ আফ্রিকা ও জিম্বাবুয়ে বিপক্ষে খুব একটা ভালো করতে পারেননি সাব্বির।

১৫ জানুয়ারি। খুলনায় জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে টি২০ সিরিজে খেলার সুযোগ পেয়ে ২০১৬ সাল শুরু করেন সাব্বির। এরপর প্রতিপক্ষের বোলারদের ওপর চলতে থাকে তার ব্যাটিং স্ট্রিমরোলার। যা এখন পর্যন্ত এসে ঠেকেছে টি২০ বিশ্বকাপের মূলপর্বের দ্বারপ্রান্তে। এর মধ্যে শুধু সেই জিম্বাবুয়ে সিরিজের একটি ম্যাচে ১ রান ও এশিয়া কাপে আমিরাতের বিপক্ষে ৬ রানই তার এক ডিজিটের ইনিংস। বাদবাকি সব ম্যাচেই খেলেছেন মারমুখী মনোভাবে; টি২০ ক্রিকেটে যা জরুরি। যে কারণে তাকে বলা হচ্ছে, বাংলাদেশের টি২০ স্পেশালিস্ট ব্যাটসম্যান।

এ বছর সাব্বির টি২০-তে বেশ ধারাবাহিক। মোট ১২টি ম্যাচ খেলে তিনি এখন পর্যন্ত করেছেন ৩৮৮ রান। যার গড় ৪৩.১১। সাব্বিরে সর্বোচ্চ ইনিংস ৮০ রানের। কিছুদিন আগে এশিয়া কাপে শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে এই রান করেছিলেন তিনি। চলতি বছর বাংলাদেশি ব্যাটসম্যানদের পক্ষে সবচেয়ে বেশি টি২০ রানও করেছেন তিনি; ৩৮৮ রান। এরপর ৩০৬ রান নিয়ে রয়েছেন ওপেনার তামিম ইকবাল।

এছাড়া এ বছর টি২০-তে সাব্বিরের পর বাংলাদেশি ব্যাটসম্যান হিসেবে পরের অবস্থানে রয়েছেন তামিম ইকবাল। ২০১৬ সালে এখন পর্যন্ত তিনি ৮টি ম্যাচ খেলে করেছেন ৩০৬ রান। টি২০ বিশ্বকাপে কাঙ্ক্ষিত ফল পেতে তাই সাব্বিরের ওপর প্রত্যাশার চাপ থাকবে, এতে অবাক হওয়ার কিছুই নেই। তবে এই চাপ আমলে নিচ্ছেন না সাব্বির। ব্যাট হাতে তিনি খেলে যেতে চান তার নিজস্ব ধারার খেলাটি; ভয়ডরহীন ক্রিকেট।

লাইভ

টপ