• Youtube
  • google+
  • twitter
  • facebook

বরিশালে উপকূলে ঝড়ের আশঙ্কা, উত্তাল সাগর

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট৯:২৮ অপরাহ্ণ, অক্টোবর ৯, ২০১৭

নিন্মচাপের কারণে উত্তাল রয়েছে সাগর। ফলে উপকূলীয় এলাকা এবং সমুদ্র বন্দরগুলোর ওপর দিয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার আশঙ্কা করছে আবহাওয়া অফিস। তাই সমুদ্র বন্দরগুলোকে তিন (৩) নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

সোমবার (০৯ অক্টোবর) সন্ধ্যায় এক পূর্বাভাসে আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছে, গাঙ্গেয় পশ্চিমবঙ্গ, বাংলাদেশ ও তৎসংলগ্ন উত্তরপশ্চিম বঙ্গোপসাগর এলাকায় অবস্থানরত স্থল গভীর নিন্মচাপটি সামান্য পশ্চিম-উত্তরপশ্চিম দিকে সরে গিয়েও একই এলাকায় অবস্থান করছে।

এটি স্থলভাগের ওপর দিয়ে আরও পশ্চিম-উত্তরপশ্চিম দিকে অগ্রসর হতে পারে। ফলে বঙ্গোপসাগর এবং তৎসংলগ্ন বাংলাদেশ এলাকায় গভীর সঞ্চালনশীল মেঘমালা তৈরি অব্যাহত রয়েছে।

আবহাওয়াবিদ মোহাম্মদ আবুল কালাম মল্লিক সাংবাদিকদের জানিয়েছেন, উত্তর বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকা এবং সমুদ্র বন্দরগুলোর ওপর দিয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যেতে পারে। তাই চট্টগ্রাম, কক্সবাজার, পায়রা ও মংলা সমুদ্র বন্দরকে তিন (৩) নম্বর স্থানীয় সতর্ক সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

একইসঙ্গে উত্তর বঙ্গোপসাগরে অবস্থানরত মাছ ধরার নৌকা ও ট্রলারগুলোকে পরবর্তী নির্দেশ না দেওয়া পর্যন্ত উপকূলের কাছাকাছি থেকে সাবধানে চলাচল করতে বলা হয়েছে।

এদিকে ১০ অক্টোবর (মঙ্গলবার) রাত ১টা পর্যন্ত ফরিদপুর, যশোর, কুষ্টিয়া, খুলনা, বরিশাল এবং পটুয়াখালী অঞ্চলের ওপর দিয়ে দক্ষিণ দক্ষিণ-পূর্ব দিক থেকে ঘণ্টায় ৬০ কিলোমিটার বেগে অস্থায়ীভাবে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। একইসঙ্গে বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে।

তাই এসব এলাকার নদী বন্দরগুলোকে দুই (২) নম্বর হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে। এছাড়া দেশের অন্য এলাকার নদী বন্দরগুলোকে এক (১) নম্বর হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলা হয়েছে।

নিন্মচাপের কারণে আরও দুইদিন সারাদেশে বৃষ্টিপাতের বর্তমান ধারা বজায় থাকবে। তবে পাঁচদিনের মধ্যে তা কমে যাবে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদফতর।

এক্ষেত্রে রাজশাহী, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের অনেক জায়গায় এবং রংপুর, ঢাকা, ময়মনসিংহ, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ী দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টিপাত হতে পারে।

তবে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি ধরনের ভারী থেকে অতিভারী বর্ষণও হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

গত ২৪ ঘণ্টায় (রোববার সন্ধ্যা ৬টা থেকে সোমবার সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত) সবচেয়ে বেশি ১১৩ মিলিমিটার বৃষ্টিপাত হয়েছে মাদারীপুরে।’’

 

লাইভ

টপ