• Youtube
  • google+
  • twitter
  • facebook

ঝালকাঠিতে সাংবাদিক নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন

বরিশাল টাইমস রিপোর্ট৫:০৩ অপরাহ্ণ, মে ১৮, ২০১৭

বনানীর হোটেল রেইনট্রিতে আলোচিত দুই বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী ধর্ষণের ঘটনায় ওই হোটেলের মালিক ঝালকাঠি-১ আসনের সংসদ সদস্য বিএইচ হারুন ও পরিচালক মাহির হারুনকে বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত সংবাদে ফেইসবুকে লাইক দেয়ায় ঝালকাঠির কাঠালিয়া উপজেলা চেয়ারম্যান ও সমর্থকদের হাতে সাংবাদিক লাঞ্ছিতের প্রতিবাদে এবং বিচারের দাবিতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার (১৮ মে) বেলা ১১টায় ঝালকাঠি জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ের সামনের সড়কে এ মানববন্ধনের আয়োজন করে বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরাম (বিএমএসএফ) ঝালকাঠি জেলা কমিটি।

ঘন্টাব্যাপি অনুষ্ঠিত এ মানববন্ধন কর্মসূচিতে স্থানীয় বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রনিক মিডিয়ার সাংবাদিকদের পাশাপাশি বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ অংশ নেন। এসময় বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ মফস্বল সাংবাদিক ফোরামের (বিএমএসএফ) কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক আহমেদ আবু জাফর, ঝালকাঠি টেলিভিশন সাংবাদিক সমিতির আহবায়ক আজমীর হোসেন তালুকদার, ঝালকাঠি সময় ও সময় টিভির জেলা প্রতিনিধি পলাশ রায়, বিএমএসএফ’র ঝালকাঠি জেলার সাংগঠনিক সম্পাদক নজরুল ইসলাম, স্থানীয় দৈনিক সময়ের বার্তার মফস্বল সম্পাদক ইঞ্জি. গোলাম মাওলা শান্ত, দৈনিক ইত্তেফাক জেলা প্রতিনিধি শফিউল ইসলাম সৈকত, জাগো নিউজ২৪.কম জেলা প্রতিনিধি আতিকুর রহমান, আরটিভির জেলা প্রতিনিধি জলিলুর রহমান এবং বৈশাখী টিভির জেলা প্রতিনিধি রতন আচার্য্য প্রমুখ।

মানববন্ধনে বক্তারা অবিলম্বে এ ঘটনায় দোষীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান। অন্যথায় কঠোর আন্দোলনের হুঁশিয়ারি দেন তারা।

বনানীর হোটেল রেইনট্রিতে আলোচিত দুই বিশ্ববিদ্যালয় ছাত্রী ধর্ষণ এবং বিএইচ হারুন ও তার পুত্র মাহির হারুনকে নিয়ে বিভিন্ন গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হলে তা সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে পড়ে।

সামাজিক যোগযোগ মাধ্যম ফেসবুকে ওই সংবাদে লাইক দেয়ায় ঝালকাঠির কাঁঠালিয়ার সাংবাদিক এইচএম বাদলকে স্থানীয় উপজেলা চেয়ারম্যান গোলাম কিবরিয়া সিকদার ও তার লোকজন গত মঙ্গলবার দুপুরে ধরে নিয়ে গিয়ে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে। আহত সাংবাদিক বাদল বর্তমানে ঝালকাঠি সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

লাইভ

টপ